আশাশুনির কুল্যায় বাড়ী থেকে বের হতে হাটু কাঁদা পাড়ি দিতে হয় অর্ধশত পরিবারের


জুন ২০ ২০২০

আশাশুনি প্রতিনিধি : আশাশুনি উপজেলার কুল্যায় নিজ বাড়ী থেকে গন্তব্যের উদ্দেশ্যে বের হতে হাটু কাঁদা পাড়ি দিয়ে হয় প্রায় অর্ধশত পরিবারের মানুষের। আর এ ভোগান্তি যেন তাদের নিত্য দিনের সঙ্গী।
সরেজমিন গিয়ে দেখা গেছে, কুল্যা গ্রামের রাজবংশী পাড়ার নূর আলী সরদারের বাড়ী থেকে রনজীৎ বিশ্বাসের বাড়ী পর্যন্ত এবং লিটিল পাড়ের মুদি দোকান থেকে অনন্ত সরকারের ছেলে সন্যাসী সরকারের বাড়ী পর্যন্ত কাঁচা রাস্তায় বর্ষা মৌসুমে হাটু কাঁদায় পরিনত হয়েছে। রাজবংশী পাড়ার ভীম মন্ডল জানান, বাড়ী থেকে বাইরে যেতে বা বাইরে থেকে বাড়ী ঢুকতে হাটু কাঁদা পাড়ি দিতে হয় তাদের। বাড়ীর শিশু থেকে বৃদ্ধদের পচালো কাঁদা ঠেলে পুষকুনিতে যেতে হয় তাদের। গৃহিনী রাধা রানী জানান, গবাদী পশুগুলো অতি কষ্টে এ কাঁদা পার করে মাঠে পাঠাতে হয়। বাড়ীর সামনের সড়কে কাঁদা পানি থাকায় বিভিন্ন রোগে আক্রান্ত হচ্ছে শিশুরা। এমতাবস্থায় এ ভোগান্তি থেকে রক্ষা পেতে কাঁচা রাস্তা গুলো পাঁকা করণ (ইটের সোলিং) করতে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন স্থানীয়রা।

শ্যামনগর

যশোর

আশাশুনি


জলবায়ু পরিবর্তন