মেয়ে আইরাকে মাঝখানে রেখে সৃজিতের হাত ধরলেন মিথিলা


ডিসেম্বর ৮ ২০১৯

Spread the love

আগে থেকে যেভাবে জানানো হয়েছিল, ঠিক সেভাবেই হলো। ভারতের কলকাতায় গতকাল শুক্রবার সন্ধ্যা নামতেই বিয়ের বাজনা বেজে ওঠে সৃজিতের দক্ষিণ কলকাতার ফ্ল্যাটে। লাল জহরকোট এবং কালো পাঞ্জাবিতে আসেন সৃজিত, আর মিথিলা পরেন লাল রঙের জামদানি শাড়ি। সাজ বিশেষ রকমের ছিল না; কপালে কেবল ছোট্ট টিপ এবং কানে-গলায় মানানসই গয়না।

সৃজিত গতকাল জানিয়েছিলেন, ইন্ডাস্ট্রির কয়েকজনকে আমন্ত্রণ করেছেন বিয়ের ঘরোয়া অনুষ্ঠানে। সন্ধ্যা হতে না হতেই হাজির হয়ে গেছেন রুদ্রনীল, শ্রীজাতরা। আসার কথা রয়েছে যিশু এবং নীলাঞ্জনারও।

অন্যদিকে শুক্রবার সকালে বাংলাদেশি একটি দৈনিককে মিথিলা জানিয়েছিলেন, বিয়ের সাজ, মেকআপ নিজেই করবেন। কিছু দিন আগে সৃজিত যখন ঢাকায় এসেছিলেন, তখন হবু বরের (বর্তমানে বর) জন্য অনেক কেনাকাটা সেরে নিয়েছিলেন। এবারেও নাকি কলকাতা যাওয়ার সময় বাংলাদেশ থেকে পদ্মার ইলিশ নিয়ে গেছেন মিথিলার বাবা-মা। সঙ্গে নিয়ে গেছেন মিথিলা-তাহসানের ছোট্ট মেয়ে আইরাকে।

এদিকে মিথিলা-সৃজিতের আলাপ বেশ কয়েক বছরের। বন্ধুত্ব থেকে শুরু। ধীরে ধীরে গাঢ় হয়েছে প্রেম। বেশ কয়েক মাস ধরেই তাদের বিয়ে নিয়ে নানা রকমের গুঞ্জন শোনা যাচ্ছিল। কেউ বলছিলেন, আগামী বছরের শুরুতে বিয়ে করবেন তারা, আবার কেউ কেউ বলছিলেন বিয়ে করতে করতে মার্চ মাস চলে আসবে। 

অবশেষে সব জল্পনার অবসান ঘটিয়ে নতুন জীবনের যাত্রা শুরু করলেন সৃজিত-মিথিলা।

শ্যামনগর

যশোর

আশাশুনি


জলবায়ু পরিবর্তন