কুলিয়ায় অস্বাস্থ্যকর পরিবেশে গোপনে তৈরী হচ্ছে শিশুদের পেপসি,হুমকীর মুখে শিশু স্বাস্থ্য


এপ্রিল ৬ ২০১৯


মোঃ ওমর ফারুক মুকুল: দেবহাটা উপজেলার কুলিয়া ইউনিয়নের দক্ষিণ কুলিয়ায় সম্পূর্ণ অস্বাস্থ্যকর পরিবেশে প্রশাসনের নাকের ডগায় গোপনে তৈরী হচ্ছে শিশুদের প্রীয় খাবার পেপসি ও বেকারী খাদ্য।সরেজমিনে গিয়ে দেখাযায়, কুলিয়া ইউনিয়ন মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয় ও স্যার আনছার আলী সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের বিপরীত পাশে দক্ষিন কুলিয়া গ্রামের শফিকুল ইসলাম(মাছ শফি) ও তার দুই পুত্র শরিফুল ইসলাম এবং আরিফুল ইসলাম গোপনে স্বাধারণ টিউবঅয়েলের পানি বালতিতে ভরে তাতে বিষাক্ত ক্যামিক্যাল রং, চিনি, স্যাকারিন ও পেপসির ফ্লেভার দিয়ে শিশু দের প্রীয় খাবার পেপসি তৈরী করছে, যা সম্পূর্ণ অস্বাস্থ্যকর এবং শিশুদের জন্য ক্ষতিকর।এছাড়া পাশেই দেখা যায় পোড়া মবিল জাতীয় তেল দিয়ে বিভিন্ন বেকারী খাদ্য তৈরীর চিত্র।এমতাবস্তায় সাংবাদিকদের উপস্থিতি টের পেয়ে বেকারী মালিক বিষাক্ত ক্যামিক্যাল ও পেপসির বালতি সহ বেকারী খাদ্য লুকানোর চেষ্টা ও দিকবেদিক ছোটাছুটি করতে থাকে।এসময় বেকারী মালিক শফিকুলের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, আমরা আর ব্যবসা করিনা মালামাল গুলো সরানোর ব্যবস্থা করছিলাম।এব্যাপারে স্যানিটারী ইন্সপেক্টর এর সাথে যোগাযোগের চেষ্টা করলে তার যোগাযোগ পাওয়া যায়নি।

শ্যামনগর

যশোর

আশাশুনি


জলবায়ু পরিবর্তন