লক্ষ্মীদাঁড়ী সীমান্তে জনতার হাতে ২ ইয়াবা ব্যবসায়ী আটক


জুন ৩ ২০১৮

Spread the love

ভোমরা প্রতিনিধি: বহুলোচিত মাদক পাচার ও ব্যবসার নিরাপদ অভয়ারণ্য লক্ষ্মীদাঁড়ী সীমান্ত। সীমান্ত ঘেঁষা এই লক্ষ্মীদাঁড়ী গ্রামে ভদ্রতার ছদ্মবেশে থাকা দু’জন ইয়াবা ব্যবসায়ীকে আটক করেছে স্থানীয় জনতা। ধৃত দু’জন মাদক ব্যবসায়ীকে তাৎক্ষণিকভাবে সাতক্ষীরা সদর থানা পুলিশের হাতে সোপর্দ করেছেন তারা। আটক ইয়াবা ব্যবসায়ীরা হলেন লক্ষ্মীদাঁড়ী গ্রামের গোলাম মোল্লার পুত্র আতিকুল মোল্লা(৩৫) এবং একই গ্রামের আজিজুল মোল্লার পুত্র জাকির হোসেন মোল্লা(৩০)।
পুলিশ জানায়, পূর্বে ইয়াবা ব্যবসায়ী আতিকুল মোল্লার বিরুদ্ধে একটি মাদক ব্যবসার মামলা এবং জাকির হোসেন মোল্লার বিরুদ্ধে দুইটি মাদক ব্যবসার মামলা রয়েছে। জানা গেছে, জনতার হাতে আটক এই দু’জন ইয়াবা ব্যবসায়ী দীর্ঘদিন যাবৎ কলারোয়া উপজেলার কুখ্যাত ইয়াবা ব্যবসায়ী তরিকুল ইসলামের সঙ্গে সখ্যতা গড়ে তুলে ইয়াবা ব্যবসা পরিচালনা করে আসছে। ধৃত দু’জন ইয়াবা ব্যবসায়ী ভোমরা বন্দর এলাকায় ইয়াবাসহ ফেনসিডিল ব্যবসার গোপন আস্তানা গড়ে তুলেছে। এখান থেকে উঠতি বয়সের যুবক ও বিভিন্ন পেশায় জড়িত লোকজন ইয়াবা ও ফেনসিডিল ক্রয় করে সেবন করে আসছে। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ইয়াবা ব্যবসায়ী তরিকুলকে ধরার জন্যে সদর থানা পুলিশ সাতক্ষীরা মেডিকেল কলেজ সংলগ্ন সাতক্ষীরা কালিগঞ্জ সড়কের পাশে ওৎ পেতে বসে থাকে। গত বুধবার সন্ধ্যায় তরিকুল মটরসাইকেল যোগে দুই শত পিচ ইয়াবা ট্যাবলেট তার পরিহিত প্যান্টের পকেটে ভরে কলারোয়ার ব্রজবক্স থেকে ভোমরায় আসার পথে সাতক্ষীরা মেডিকেল কলেজের সামনে পৌছালে পুলিশ তাকে থামিয়ে দেহ তল্লাশি চালায়। তল্লাশিকালে পুলিশ তার প্যান্টের পকেট থেকে দুই’শ পিচ ইয়াবা উদ্ধার করার পর তাকে আটক করে। ঘটনাস্থলে পুলিশের জিজ্ঞাসাবাদে তরিকুল জানায়, সে লক্ষ্মীদাঁড়ী গ্রামের আতিকুর মোল্লা ও জাকির মোল্লার সঙ্গে ইয়াবা ব্যবসা করে আসছে। ধৃত তরিকুলের স্বীকারোক্তিতে জনতার সহাতায় পুলিশ এই দু’জন ইয়াবা ব্যবসায়ীকে আটক করতে সক্ষম হয়।
ঝাউডাঙ্গায় অসহায়

শ্যামনগর

যশোর

আশাশুনি


জলবায়ু পরিবর্তন