‘আমি ওবামা, প্রেসিডেন্ট ছিলাম, মনে আছে তো?’


নভেম্বর ৩ ২০২০

অনলাইন ডেস্ক

সাবেক আমেরিকান প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামার শেয়ার করা দুই মিনিটের একটি ভিডিও নেটে ভাইরাল হয়েছে। ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে, নীল ফুল হাতা শার্ট পরা ওবামা তার পাশে রাখা একটি ল্যান্ডফোন থেকে একটি নম্বরে ডায়াল করছেন। আসলে এক মহিলাকে ফোন করে এবারের ডেমোক্র্যাট প্রেসিডেন্ট পদপ্রার্থী জো বাইডেনের হয়ে ভোট চেয়েছেন বাইডেনেরই সাবেক ‘বস’। সেই ফোনালাপই এখন নেটে ঝড় তুলেছে। খবর আনন্দবাজারের।

ওবামা নিজের টুইটারে শেয়ার করার কিছুক্ষণের মধ্যেই প্রায় ২০.৮ লাখ নেটিজেন সেটি দেখেছেন। এলিসা ক্যামেরোটা নামে যে নারীকে তিনি ফোন করেছিলেন, সেই নারীও সোশ্যাল মিডিয়ায় সাবেক প্রেসিডেন্টের সঙ্গে তার কথাবার্তার সেই ভিডিও পোস্ট করেছেন। দেশের সাবেক প্রেসিডেন্টের ব্যবহারে এলিসা তো মুগ্ধই, সামাজিক মাধ্যমের অনেকেই ওবামার প্রশংসা করছেন।

ভিডিওটি শেয়ার করার আগে একটি পোস্ট লিখেছেন ওবামা। বলেছেন, `বাড়িতে থেকে বা পোলিং স্টেশনে গিয়ে পার্থক্যটা আপনিই গড়তে পারবেন। অনেক প্রদেশেই মাত্র কয়েকটা ভোটের হেরফেরেই অনেক কিছু হতে পারে..।’

ভিডিওর শুরুতে দেখা গেছে, এলিসা ফোনটা তোলার পরেই নিজের পুরো নাম বলে তাকে তিনি জিজ্ঞেস করেন, `আমি আপনাদের প্রেসিডেন্ট ছিলাম, মনে আছে?’ এলিসা ততক্ষণে ফোনের অপর প্রান্তে থাকা ব্যক্তির গলা চিনে ফেলেছেন। তিনি উত্তর দেন ‘আমার মনে হয় এ বার প্যানিক অ্যাটাক হবে।’ ওবামা তাকে মনে করিয়ে দেন, মঙ্গলবারের ভোটের কথা।

জানান, এ বারের ভোট কেন এত গুরুত্বপূর্ণ। বলেন‘আমি চাই বাইডেন আর কমলার হয়ে আপনি ভোট দিন। চাইলে আপনার পোলিং বুথ সংক্রান্ত সব তথ্যও আমি আপনাকে দিতে পারি।’ এলিসা উত্তরে জানান, তিনি সব জানেন, তিনি অবশ্যই ভোট দিতে যাবেন। কথার মাঝেই শোনা যায় এক শিশুর গলা। ওবামা এ বার এলিসাকে জিজ্ঞেস করেন ব্যাপার কী।

এলিসা জানান, তার আট মাসের ছেলে রয়েছে। নাম জ্যাকসন। ওবামাকে সেই জ্যাকস সম্বোধন করে তার সঙ্গে কথা বলতে চান। এ-ও জানান, ওইটুকু ছেলে নিশ্চয়ই চাইছে না যে তার মায়ের সঙ্গে অন্য কেউ এত ক্ষণ ধরে কথা বলুক।

শুধু এই ফোনালাপই নয়, শেষ দফার প্রচারে নিজের সাবেক সহকারীর হয়ে একাধিক জায়গায় সভা করতে দেখা গেছে ওবামাকে। গত শনিবারই মিশিগানে গিয়েছিলেন ডোনাল্ড ট্রাম্পের পূর্বসূরি। একটি জিমের বাস্কেটবল কোর্টে নিখুঁত শট দিতে দেখা গেছে ওবামাকে। কালো জ্যাকেট, মুখে কালো মাস্ক পরা ওবামাকে কোর্ট থেকে বেরোতে বেরোতে বলতে শোনা গিয়েছে ‘দ্যাটস হোয়াট আই ডু।’ লাখ লাখ মানুষ সেই ভিডিওটি লাইক আর শেয়ার করেছেন।

শ্যামনগর

যশোর

আশাশুনি


জলবায়ু পরিবর্তন