শ্যামনগরে প্রতিপক্ষের লাঠি ও ধারালো অস্ত্রের আঘাতে মহিলাসহ আহত ৫


জানুয়ারি ২৭ ২০১৯

শ্যামনগর ব্যুরো: শ্যামনগর উপজেলার ভৈরবনগর গ্রামে জমিজমা সংক্রান্ত বিরোধকে কেন্দ্র করে প্রতিপক্ষের লাঠি ও ধারালো অস্ত্রের আঘাতে ১ জন মহিলাসহ ৫ জন গুরুতর জখম হয়েছে। বর্তমানে তারা শ্যামনগর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছ। এঘটনায় থানায় মামলা হয়েছে মামলা নং-২২।
মামলার নথি সূত্রে জানা যায়, মামলার বাদী ভৈরবনগর গ্রামের মৃত মাদার গাজীর পুত্র মোঃ জিয়াদ আলী গাজী শ্যামনগর থানায় মামলার অভিযোগে উল্লেখ করেছেন শুক্রবার সকাল ১০ টায় তাদের রেকর্ডিয় সম্পত্তিতে কাজ করার সময় প্রতিপক্ষ একই গ্রামের আনছার গাজীর পুত্র সোহরাব, আশরাফ, আফছার, নুর আলী গাজীর পুত্র মোস্তফা, ফারুখ ও আমিনুর সহ ১৫ জন দলবদ্ধ হয়ে জিয়াদ গাজীদের কাজে বাধা দেয় এবং জবর দখল করার চেষ্টা করে। এসময় জিয়াদ গাজী পক্ষ বাধা দিলে জবর দখলকারীরা জিয়াদ গাজী, জিয়াদ গাজীর পুত্র আনারুল, সাত্তার গাজীর স্ত্রী মনোয়ারা বেগম, ভাদ্দর সরদারের পুত্র বেল্লাল, বেল্লালের পুত্র সাইফুল, কেরামত গাজীর পুত্র মিজানুরকে ধারালো অস্ত্র ও লাঠি দিয়ে তাদের মাথায়, হাত ও পায়ে আঘাত করে গুরুতর জখম করে। পরে তাদের শ্যামনগর হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য নিয়ে যাওয়া হয়। এঘটনায় জবর দখলকারীদের বিরুদ্ধে শ্যামনগর থানায় ১৪৩, ৪৪৭, ৩২৩, ৩২৫, ৩২৬, ১১৪, ৫০৬ ধারায় মামলা হয়েছে, মামলা নং-২২।

শ্যামনগর

যশোর

আশাশুনি


জলবায়ু পরিবর্তন