জেএমবির বোমারু মিজান ভারতে গ্রেপ্তার


আগস্ট ৭ ২০১৮

ঢাকা ব্যুরো : জামাতুল মোজাহিদিন বাংলাদেশ-জেএমবির নেতা বোমারু মিজানকে আটক করেছে ভারতের জাতীয় তদন্ত সংস্থা এনআইএ। দুদিন আগে ভারতের বেঙ্গালুরু থেকে তাকে আটক করা হয় বলে জানিয়েছে টাইমস অব ইন্ডিয়া।
২০১৪ সালের ২৩ ফেব্রুয়ারি গাজীপুর কাশিমপুর কারাগার থেকে মিজানসহ মৃত্যুদণ্ড পাওয়া দুই জেএমবি নেতা সালাউদ্দিন সালেহীন ওরফে সানি এবং হাফেজ মাহমুদ ওরফে রাকিব হাসানকে নিয়ে ময়মনসিংহ রওয়ানা হয়েছিল পুলিশ। মিজান ছিলেন যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত। ময়মনসিংহের ত্রিশালে পৌঁছার পর প্রিজন ভ্যানে হামলা করে জঙ্গিরা। খুন করা হয় পুলিশ কনস্টেবল আতিকুল ইসলামকে। আহত হন আরও দুই জন। এর মধ্যে পালিয়ে যান সাজাপ্রাপ্ত তিন জঙ্গি।
এনআইএ জানায়, ৩ আগস্ট কেরালার মালাপুরাম জেলার একটি শ্রম শিবির থেকে আবদুল করিম ও মুস্তাফিজুর রহমান নামে জেএমবির দুই কর্মীকে আটক করে এনআইএ। তাদের কাছ থেকে পাওয়া খবরের ভিত্তিতে বেঙ্গালুরু থেকে আটক করা হয় বোমারু মিজান ওরফে কায়সার ওরফে মুন্না ওরফে বাদাভাইকে।
এই তিন জনই চলতি বছরের জানুয়ারিতে ভারতের বিহারে বুদ্ধ গয়ায় মহাবোধি মন্দির এবং পশ্চিমবঙ্গে বর্ধমান শহরের খাগড়াগড় বিস্ফোরণের সঙ্গে জড়িত বলে জানিয়েছে এনআইএ।
তারা একে বোমা তৈরিতে একে অপরকে সহযোগিতা করতো বলেও জানিয়েছে এনআইএ।
গেল ৪ আগস্ট আটককৃত জেএমবি নেতা-কর্মীদের কোচিতে এনআইএর বিশেষ আদালতে তোলা হয়। আদালত তাদের ৪ দিনের রিমান্ডে নেয়ার আদেশ দেন। পরে পাটনার আদালতে তোলা হলে এআইএর অধীনে ১৫ দিনের আটকাদেশ দেন বিচারক।

শ্যামনগর

যশোর

আশাশুনি


জলবায়ু পরিবর্তন