দেবহাটায় স্কুল শিক্ষকের বিরুদ্ধে ছাত্রী নির্যাতনের অভিযোগ


মে ৭ ২০১৮

দেবহাটা ব্যুরো: দেবহাটা উপজেলার ভাতশালা সম্মিলনী উচ্চ বিদ্যালয়ের গণিত শিক্ষকের বিরুদ্ধে ছাত্রী নির্যাতনের অভিযোগ উঠেছে। তার বিরুদ্ধে উপজেলা নির্বাহী অফিসারের নিকট লিখিত অভিযোগ করেছে নির্যাতিত ছাত্রীর পিতা। লিখিত অভিযোগটি দায়ের করেছেন উক্ত বিদ্যালয়ের নবম শ্রেনীর শিক্ষার্থী নাসরিন আক্তারের পিতা ভাতশালা গ্রামের আব্দুস ছালেক ঢালী। অভিযোগে তিনি ঐ শিক্ষকের বিরুদ্ধে যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণের আবেদন জানিয়েছেন। অভিযোগ সূত্রে যায়, উক্ত বিদ্যালয়ের গণিত শিক্ষক মাসুদ করিমের নিকট তার কন্যা নাসরিন প্রাইভেট না পড়ার কারণে মাসুদ করিম তার কন্যাকে কারণে অকারণে অসৌজন্যমূলক আচরণ ও কটুক্তি করে। যার কারণে সে জেএসসি পরীক্ষার পরে তার কন্যাকে অন্য বিদ্যালয়ে ভর্তি করতে চায়। স্কুলের ম্যানেজিং কমিটির সদস্যবৃন্দ ও কয়েকজন শিক্ষক তার বাড়িতে যেয়ে ভবিষ্যতে এধরনের আচরণ আর না করার প্রতিশ্রুতি দিলে তিনি তার কন্যাকে উক্ত বিদ্যালয়ে অধ্যায়নরত রাখেন। কিন্তু কিছুদিন পর থেকেই আবারো শিক্ষক মাসুদ করিম তার কাছে প্রাইভেট না পড়ার কারণে শ্রেনী কক্ষে বিভিন্নভাবে কটুক্তির মাধ্যমে তার কন্যাকে মানসিক চাপ সৃষ্টি করতে থাকে। গত ইং ২১ এপ্রিল বিনা কারণে তার কন্যাকে মারপিট ও বিভিন্ন অবাঞ্চিত কথাবার্তা বলে। ফলে তার মেয়ে মানসিকভাবে ভেঙ্গে পড়েছে এবং তার স্বাভাবিক লেখাপড়া ব্যহত হচ্ছে। আব্দুস ছালেক এ বিষয়ে গত ২৪এপ্রিল স্কুলের প্রধান শিক্ষকের নিকট এ বিষয়ে লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন এবং ম্যানেজিং কমিটির সভাপতিকে বিষয়টি অবহিত করেছেন বলে জানান। কিন্তু এখনো পর্যন্ত এ বিষয়ে কোন ব্যবস্থা গ্রহণ না করাই তিনি উপযুক্ত বিচার পাওয়ার দাবিতে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার নিকট অভিযোগ জানিয়েছেন বলে জানান। ইউএনও হাফিজ-আল আসাদ জানান, তিনি অভিযোগ পেয়েছেন। বিষয়টি তদন্তপূর্বক উপযুক্ত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

শ্যামনগর

যশোর

আশাশুনি


জলবায়ু পরিবর্তন